মুখরিত ছিল টেস্টবিডির কাস্টমার মিটআপ  

digitalsomoy

উদ্যোক্তা ও  কাস্টমারদের প্রাণোচ্ছ্বল উপস্থাপনা, গঠনমূলক আলোচনা, র‍্যাফেল ড্রয়ের মতো আয়োজন এবং উৎসবমুখরতার মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল টেস্টবিডির কাস্টমার মিটআপ। শুক্রবার (২৯ জানুয়ারি) রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকার একটি রেস্টুরেন্টে অনুষ্ঠিত হয় এই কাস্টমার মিটআপ।  

এসময় উপস্থিত ছিলেন ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ই-ক্যাব) এর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি রাজিব আহমেদ। কাকলী’স অ্যাটিয়ার’সের স্বত্বাধিকারী কাকলী রাসেল তালুকদার, পরিধান শৈলীর স্বত্বাধিকারী রাকিমুন বিনতে মারুফ জয়াসহ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে প্রায় ৮০ জন কাস্টমার।  ফেসবুক পেজ টেস্টবিডি চাঁপাইনবাবগঞ্জের, পেরা, চমচম, কিশোরগঞ্জের পনির, শাল, শাড়িসহ দেশীয় বিভিন্ন পণ্য বিক্রি করে। কমপক্ষে ছয় বার কেনাকাটা করেছে অথবা তিন টা শাল ক্রয় করেছে এমন ক্রেতাদের নিয়ে আয়োজন করেছে এ মিটআপ। সেরা ২৮ জন কাস্টমারকে দেওয়া হয়েছে সম্মাননা ক্রেস্ট।

টেস্টবিডির স্বত্বাধিকারী সালমা নেহার স্বাগত বক্তব্যে শুরু হয়েছে কাস্টমার মিটাআপ। এরপর ক্রেতারা স্টেজে এসে প্রতিষ্ঠানটির প্রোডাক্ট, সার্ভিস সম্পর্কে নিজেদের মতামত ও পরামর্শ তোলে ধরেন, বার বার কেনাকাটা করার কারণও উল্লেখ করেছেন কয়েকজন ক্রেতা। অনুষ্ঠানের শেষ অংশে র‍্যাফেল ড্র করা হয়েছে এবং বিজয়ীদের দেশিয় (শাকসবজি, লুডু, শাল, শাশিসহ অন্যান্য) উপহার দেওয়া হয়েছে।

বৃত্তকথনের স্বত্বাধিকারী জান্নাতুল ফেরদৌস তিথি জানান, আজকের কাস্টমার মিটআপ আমার জন্য গতানুগতিক কাস্টমার মিট আপ থেকে ভিন্ন ছিলো কারণ আজকে আমি সালমা আপুর স্টলের দায়িত্বে ছিলাম। একেবারেই নতুন অভিজ্ঞতা ছিলো আমার জন্য। এছাড়াও কেয়া আপুর বক্তব্য ভালো লেগেছে। আমি কাস্টমার মিট আপগুলোতে যাই মূলত নতুন কিছু শেখার ও অভিজ্ঞতা অর্জনের জন্য।

চা এর চুমুকের স্বত্বাধিকারী হাফসা সিদ্দিকা বলেন, কাস্টমার মিট আপগুলোতে যেমন একে অপরের সাথে পরিচিত হবার একটি বিষয় থাকে, কিছুসময় ফরমাল ব্যাপার ও থাকে। কিন্তু আজকের সালমা নেহা আপুর কাস্টমার মিট আপে সবকিছু এতো প্রাণোচ্ছ্বল এবং উৎসবমুখর ছিলো পুরোটা সময় ভালো লেগেছে।

ই-ক্যাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও সার্চ ইংলিশের প্রতিষ্ঠাতা রাজিব আহমেদ বলেন, এই ধরনের কাস্টমার মিট আপ এখন নিয়মিত হচ্ছে। তবে আমি চাই ৩-৪ জন উদ্যোক্তা মিলে একটু বড় আকারে এমন আয়োজন করবে। এক সময় ১০-২০ জন উদ্যোক্তা মিলে চেষ্টা করলে দেশি পণ্যের প্রদর্শনী সারা দেশেই হবে। এটি খুব দূরে নয়।

টেস্টবিডির স্বত্বাধিকারী বলেন, সরাসরি আমাদের কয়েকজন ক্রেতার কথা শুনতে পেরে অনেক ভালো লেগেছে। আমাদের সাথে তাদের কেনাকাটার অভিজ্ঞতাগুলো জানতে পেরেছি। সারা দেশ থেকে ক্রেতারা যোগ দিয়েছে এটি আমাদের জন্য গর্বের। আমি আনন্দিত প্রথম কাস্টমার মিটআপে ২৮ জন ক্রেতাকে ক্রেস্ট দিয়ে সম্মান জানাতে পেরে।